গাজীপুরে প্রবাসীর স্ত্রীকে ধর্ষনের চেষ্টায় থানায় মামলা


Admin   প্রকাশিত হয়েছেঃ   ৭ অক্টোবর, ২০২০

গাজীপুর প্রতিনিধিঃ গাজীপুরে প্রবাসীর স্ত্রী কে ধর্ষনের চেষ্টায় দুই জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা হয়েছে।অভিযোক্ত আসামীরা হলো উপজেলার পিরুজালী ময়তাপাড়া এলাকার মৃত. আক্রম আলীর ছেলে কুদ্দুস বেপারী(৫০), ধর্ষনের সহযোগি একই এলাকার মৃত.জব্বার মন্ডরের ছেলে সাগর মন্ডল (৪৮)।গৃহবধুর অভিযোগের পেক্ষিতে বোধবার দুপুরে জয়দেবপুর থানায় মামলাটি রেকর্ট করা হয়েছে।মামলা নং ০৮।

মামলা সুত্রে জানা যায়, সোমবার(৫অক্টোবর)দিবাগত রাতে স্বামী প্রবাসে থাকায় ছেলে মাহিম (১২)কে নিয়ে তার বাবার বাড়ীতে বসবাস করে আসছিলেন।বাড়ীতে কোন পুরুষ লোক না থাকায় সুযোগে রাত ১০ ঘটিকায় অভিযোক্ত আসামী কুদ্দুস জানালা ভেঙ্গে ঘড়ে প্রবেশ করার চেষ্টা করে ।গৃহবধু রাতে জানালার পাশে শব্দশুনে দরজা খেুলে বাহির আসেন।এরি সুযোগে কুদ্দুস গৃহবধুর ঘড়ে প্রবেশ করে এবং কু-প্রস্তাব দিযে জোর পূর্বক ধর্ষনের চেষ্টা করে।দস্তাদস্তির এক পর্যায়ে গৃহবধু ধর্ষন থেকে বাজতে পাশে থাকা কাপড় কাটার কেচি দিয়ে কুদ্দুসের শরীলে আঘাত করতে কুদ্দুস পালিয়ে যায়।এদিকে গৃহবধুর ডাক চিৎকারে পাশের ঘড়ে থাকা বৃদ্ধ মা ছুটে আসেন।পরবর্তীতে ঘটনা দামাচাপা দিতে দিত্বীয় আসামী সাগর মন্ডল ছুটে আসে।সাগর গৃহবধুকে ৩০হাজার টাকা দিয়ে ঘটনাটি দামাচাপা দিতে বলে।এ বিষয়ে থানায় কোন অভিযোগ করলে প্রাননাশের হুমকি দেয়।

সরেজমিনে গেলে, অভিযুক্ত কুদ্দুস বেপারী ও সাগর সন্ডলের সাথে কথা বলতে চাইলে তারা সংবাদকর্মীদের উপস্থিতি টের পেয়ে এলাকা ছেড়ে পালিয়ে যায়। জানাযায়,মঙ্গলবার রাতে আসামীরা তাদের পেশী শক্তি খাটিয়ে গৃহবধুকে হেনস্থা করার চেষ্টা করে এবং অভিযোগ তুলে নিতে ২লক্ষ টাকা দিবে বলে আপোষের প্রস্তাব করে। এবিষয়ে পিরুজালী ইউনিয়ন ওয়ার্ড সদস্য ফরজ আলী’র কাছে আপোষ মীমাংসার ঘটনার বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি ঘটনার বিষয়টি এরিয়ে যান এবং এমন কোন ঘটনা ঘটেনি বলে জানান।

জয়দেবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জাবেদুল ইসলাম জানান,আমরা ধর্ষনের চেষ্টার ঘটনার বিষয়ে একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি।প্রাথমিক তদন্তে ঘটনার সত্ততা পাওয়া গেছে।উক্ত ঘটনা তদন্ত সাপেক্ষে ৭ অক্টোর দুপুরে ধর্ষন চেষ্টা ও সহায়তা আইনে একটি মামলা রুজু করা হয়েছে এবং মামলাটি তদন্তাধিন আছে।