স্বামীর অত্যাচারে শরীরে আগুন লাগিয়ে গৃহবধূর আত্মহত্যার চেষ্টা


Admin   প্রকাশিত হয়েছেঃ   ১৫ জুন, ২০২০

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় রহিমা বেগম (৩০) নামে এক গৃহবধূ স্বামীর অত্যাচারে অতিষ্ট হয়ে নিজের শরীরে আগুন লাগিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন।

বৃহস্পতিবার দিনগত রাত সাড়ে আটটার দিকে উপজেলার টিকিকাটা ইউনিয়নের ঘোষের টিকিকাটা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।আগুনে ওই গৃহবধূ শরীরের ৬০ শতাংশ দগ্ধ হয়ে তিনি মৃত্যুর সঙ্গে লড়ছেন। আহত গৃহবধূ ঘোষের টিকিকাটা গ্রামের মো. ইমাম হোসেনের স্ত্রী। এ ঘটনার পর স্বামী গা ঢাকা দিয়েছে।হাসপাতাল ও ভুক্তভোগী সূত্রে জানা গেছে, স্বামীর অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে ওই গৃহবধূ রাত আটটার দিকে ক্ষোভে নিজের শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন লাগিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা চালায়। প্রতিবেশীরা বিষয়টি টের পেয়ে গুরুতর অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে রাত নয়টার দিকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। পরে রাতে তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় বরিশাল শেরে বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।মঠবাড়িয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. রাকিবুল ইসলাম জানান, আগুনে গৃহবধূর শরীরের ৬০ শতাংশ দগ্ধ হয়েছে। তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে স্থানান্তর করা হয়েছে।মঠবাড়িয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মাসুদুজ্জামান বলেন, থানায় এ বিষয়ে কেউ অভিযোগ দেয়নি। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। লিখিত অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।